Home / হাতে কলমে / টিপস এন্ড ট্রিকস / সম্পর্ক টিকিয়ে রাখার সহজ উপায়
সম্পর্ক টিকিয়ে রাখার সহজ উপায়

সম্পর্ক টিকিয়ে রাখার সহজ উপায়

একটা সম্পর্কে জড়ানোটা সহজ, কিন্তু কথা হচ্ছে সেটি ভালো উপায়ে টিকিয়ে রাখাটা বেশ কঠিন। কোন একটি ছোটখাট বিষয়ে সম্পর্ক নষ্ট হয়ে যেতে পারে, আবার ছোট ছোট বিষয় সম্পর্ককে চাঙ্গা করেও তুলতে পারে। আপনাকে শুধু জানতে হবে এমন কোন বিষয়গুলো সম্পর্ককে ভালো রাখবে। তাহলেই দেখবেন জীবন কত সুন্দর হয়।

আমাদের সম্পর্ক ভালো রাখার কয়েকটি উপায়ের কথা বলা হয়েছে এখানে। আপনি চাইলে এখানের পরামর্শগুলো একবার দেখে নিতে পারেন।

আপনার সঙ্গী আপনার কথামত কিছু না করলে আপনি হয়তো তার ওপর খুবই বিরক্ত হন এবং তাঁর সঙ্গে খারাপ আচরণ করেন। এর ফলে আপনাদের মধ্যে ঝগড়াও হয়ে থাকে। এখন থেকে এই কাজ আর করবেন না, যদি সম্পর্ক ভালো রাখতে চান। কোনো কিছু মনমতো না হলে ক্ষেপে না গিয়ে তাঁর সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ আচরণ করুন, জানার চেষ্টা করুন কেন করা হয়নি। এমন আচরণ করলে সঙ্গী পরবর্তী সময়ে নিজেকে শুধরে নেবে আর আপনাদের সম্পর্কেরও অবনতি ঘটবে না।

দুজনই কথা বলে জানার চেষ্টা করুন কেন আপনাদের মতের অমিল হয়। কোন বিষয়টিতে আপনারা দ্বিমত প্রকাশ করেন। যখনই বিষয়টি বেরিয়ে আসবে দেখবেন পরে আর আপনাদের মধ্যে মতের অমিল হবে না।

দুজনই কী চান সেটি দুজনেরই কাছে প্রকাশ করুন। কখনো নিজের ইচ্ছেকে সঙ্গীর কাছে লুকিয়ে রাখবে না। দেখবেন সম্পর্কে তখন আর হতাশা কাজ করবে না।

নেতিবাচকের থেকে বেশি ইতিবাচক হওয়ার চেষ্টা করুন। চাইলে সবকিছুতেই ভুল ধরা সম্ভব। কী লাভ বলুন ভুল ধরে? আপনি তো আর তাকে ছেড়ে চলে যাবেন না। অযথা সম্পর্কে টানাপড়েন শুরু হবে। তাই প্রতিটি জিনিসই ইতিবাচক দৃষ্টিতে দেখার চেষ্টা করুন।

নিজেরা সময় কাটানোর চেষ্টা করুন। কাজ, প্রযুক্তি, আত্মীয়স্বজন সব কিছুর বাইরে নিজেরা কিছুটা সময় কাটান। এটা সম্পর্ককে মজবুত করতে সাহায্য করবে।

সবসময় উপহার দেওয়ার জন্য উপলক্ষের প্রয়োজন হয় না। যেকোনো কারণেই উপহার দেওয়া যায়। সঙ্গীকে হঠাৎ করেই একটা উপহার দিয়ে চমকে দিন। দেখবেন সে কতটা খুশি হয়। এটা আপনাদের সম্পর্কে ভালো লাগা তৈরি করবে।

সঙ্গীর প্রত্যেকটি কাজকে মূল্যায়ন করার চেষ্টা করুন। তাঁর কষ্টকে মেনে নিতে শিখুন। তাঁর প্রশংসা করুন। দেখবেন, পরবর্তী সময়ে তিনি কাজের ক্ষেত্রে উৎসাহ পাবেন এবং আপনার প্রতি তাঁর বিশ্বাস তৈরি হবে।

About Parves Ahmed

Check Also

​মেজাজ ঠিক রাখার ৫ উপায়

​মেজাজ ঠিক রাখার ৫ উপায়

ক্ষণিকের দুঃসংবাদে মলিন হতে পারে হাসিমুখ। মন খারাপ হতে পারে। বিষণ্নতা এসে ভর করতে পারে। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *